পোস্ট সূচি

Live Location: অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় ২০২৪

প্রায়ই ট্রেনে ভ্রমণ করেন? কোন ট্রেন কখন কোন স্টেশনে পৌছবে, কত মিনিট লেট আছে এসব বিষয় জানতে পারবেন আজকের ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় সম্পর্কিত আর্টিকেলটি পড়ে।

বাংলাদেশে যত ধরনের দূরপাল্লার বাহন আছে তার মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় হলো ট্রেন। সাশ্রয়ী ভাড়ায় নিরাপদে ও স্বাচ্ছন্দ্যে গন্তব্যে পৌছানোর সুবিধা পেতে সকলেরই পছন্দের শীর্ষে থাকে রেল ভ্রমণ।

কিন্তু অনেক সময়েই এই সুখের ভ্রমণ রূপ নিতে পারে বিরক্তি ও বিড়ম্বনায়। ট্রেন স্টেশনে পৌছানোর অনেক আগেই আমরা সাধারতন স্টেশনে গিয়ে হাজির হয়ে যায়, এই ভয়ে যে ট্রেনটা যদি মিস করি।

আবার কখনো কখনো সঠিক সময়ে স্টেশনে পৌছাতে পারি না। ফলে ট্রেন মিস করতে হয়। স্টেশনের উদ্দেশ্যে রওনা দেওয়ার আগেই যদি ট্রেনের লাইভ লোকেশন জানা যেত তাহলে বেশ উপকার হতো। তাই তো?

ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়
ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়

এই সমস্যার সমাধান জানতে পারবেন আজকের এই আর্টিকেলে। বিস্তারিত জানতে সম্পূর্ণ পড়তে থাকুন।

ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

আপনি যেকোনো সময় যেকোনো ট্রেনের বর্তমান অবস্থান জানতে পারবেন। এজন্য আপনাকে স্টেশনে পৌছাতে হবে বা স্টেশন মাস্টারের কাছে যেতে হবে, বিষয়টি সেরকম না।

মোবাইলে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় রয়েছে দুইটি। সেগুলো হলো:

  1. ট্রেন লোকেশন মেসেজ (SMS)
  2. ট্রেনের লোকেশন অ্যাপ (App)

নিচের অংশে আমরা এই দুইটা মাধ্যম সম্পর্কে বিস্তারিত জানবো।

অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়

আপনার যদি একটা স্মার্টফোন (Android/IOS) থাকে তাহলে এটি দিয়ে যেকোনো সময় ট্রেনের লাইভ লোকেশন ট্র্যাক করতে পারবেন।

এর ফলে স্টেশনের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হওয়ার আগে জেনে নিতে পারবেন আপনার কাঙ্ক্ষিত ট্রেনটি আসতে কত সময় লাগবে।

অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় হিসেবে আমরা একটি মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করবো। কিভাবে অ্যাপটি  ব্যবহার করবেন তা জানতে নিচের ধাপগুলো অনুসরন করুন।

ধাপ-১: ট্রেনের লোকেশন অ্যাপ ইনস্টল করুন

সর্বপ্রথম যে কাজটি করতে হবে তা হলো Play Store-এ গিয়ে BR Explorer লিখে সার্চ করুন। নিচের ছবিতে দেখানো অ্যাপটি আপনার ফোনে ইনস্টল করে ফেলুন।

ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়
ট্রেনের লোকেশন অ্যাপ

ধাপ-২: অ্যাকাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করুন

এই অ্যাপটি ব্যবহার করার জন্য প্রথমেই একটি একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। এজন্য প্রয়োজন হবে একটি সচল মোবাইল নাম্বার ও একটি ইমেইল অ্যাড্রেস।

ফোনে অ্যাপ ইনস্টল হয়ে গেলে সেটি ওপেন করুন। কালো ব্যাকগ্রাউন্ডের প্রথম পেইজের নিচের দিকে Signup Now লেখা বাটন দেখতে পাবেন। সেখানে ক্লিক করলে নিচের ছবির মতো একটি ফরম দেখতে পাবেন।

ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়
একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করুন

এখানে আপনার ফোন নাম্বার, ইমেইল অ্যাড্রেস ও পাসওয়ার্ড লিখুন। জাতীয় পরিচয়পত্র স্ক্যান করা বাধ্যতামূলক নয়, আপনি চাইলে এটা এড়িয়ে যেতে পারেন।

সকল তথ্য সঠিকভাবে পূরণ করা হলে Terms and conditions ফিল্টে টিক মার্ক দিয়ে Registration লেখা হলুদ বাটনে ক্লিক করুন।

বোনাস টিপস💡
ব্যবহার করলে প্রথম ২৫ বার একদম ফ্রিতে ট্রেনের লাইভ লোকেশন জানতে পারবেন।

এখন আপনার ফোনে একটি OTP যাবে। সেটা এখানে প্রদান করলে একাউন্ট ভেরিফাই হয়ে যাবে এবং রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন হবে।

ধাপ-৩: কাঙ্ক্ষিত ট্রেন নির্বাচন করুন

সফল্ভাবে একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন হলে পুনরায় লগিন করুন। এবং BR Explorer অ্যাপের উপরের ডান পাশের মেনুবারে ক্লিক করুন। তারপরে ট্রেনের বর্তমান অবস্থান জানতে Locate Train অপশনটি নির্বাচন করুন।

ট্রেনের অবস্থান জানার উপায়
ট্রেন নির্বাচন করুন

পরবর্তী পেইজে আপনার কাঙ্ক্ষিত ট্রেনটি নির্বাচন করতে হবে যেটি আপনি ভ্রমণ করতে চান। এজন্য সেই ট্রেনের নাম অথবা কোড লিখে সার্চ করুন। সকল ট্রেনের কোড নাম্বার শেয়ার করেছি এই আর্টিকেলের শেষে।

আপ ট্রেন ও ডাউন ট্রেন

আপনি যখন কোনো ট্রেনের নাম লিখে সার্চ করবেন তখন দুইটা ট্রেন দেখতে পাবেন। একটি হলো UP এবং একটা DOWN. যেগুলো ঢাকার উদ্দেশ্যে যায় সেগুলো আপ ট্রেন এবং যেগুলো ঢাকা থেকে ছেড়ে আসে সেগুলো ডাউন ট্রেন। আপনি যেটাতে ভ্রমণ করবেন সেটা নির্বাচন করুন।

ট্রেনের বর্তমান অবস্থান জানুন

কাঙ্ক্ষিত ট্রেনের নামের উপরে ক্লিক করলে উপরের ছবির মতো একটা কনফারমেশন মেসেজ দেখতে পাবেন। এখানে Yes সিলেক্ট করুন।

ধাপ-৪: ট্রেনের লাইভ লোকেশন দেখুন

এবার যে পেইজটি আসবে সেখানে আপনার নির্বাচিত ট্রেনের অবস্থান, গতিবেগ, কোচের সখ্যাসহ যাবতীয় তথ্য দেখতে পাবেন। আর গুগল ম্যাপে ট্রেনের লোকেশন দেখতে Open Train Location on Map বাটনে ক্লিক করবেন।

বলে রাখা ভালো যে, একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করলে প্রথমে কয়েকবার ফ্রিতে লোকেশন ট্র্যাক করার সুযোগ দেয়। পরবর্তীতে টাকা টাকা দিয়ে পয়েন্ট কিনে এই অ্যাপটি ব্যবহার করতে হবে।

মেসেজে ট্রেনের লোকেশন জানার উপায়

যদি আপনার কাছে স্মার্টফোন না থাকে তাহলে ট্রেনের অবস্থান জানতে এসএমএস পদ্ধতি ব্যবহার করতে পারেন। এবার জানাবো কিভাবে ট্রেন লোকেশন মেসেজ পাঠাবেন।

আরো পড়ুন: ই-পাসপোর্ট আবেদনের নিয়ম

ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় হিসেবে SMS পাঠাতে নিচের ধাপগুলো খেয়াল করুনঃ

  • ধাপ-১: প্রথমেই আপনার ফোনের মেসেজ অপশনে যান।
  • ধাপ-২: এরপরে Sender এর ঠিকানায় 16318 নাম্বারটি লিখুন।
  • ধাপ-৩: মেসেজ অংশে লিখুন TR <space> Train Name/Code No.
  • ধাপ-৪: সবশেষে পাঠিয়ে দিন উক্ত নাম্বারে।

মেসেজ লেখার ফরম্যাটটি যেন ভালোবাভাবে বুঝতে পারেন সেজন্য Sundarban Ex. (725 ট্রেনের অবস্থান জানতে এসএমএস এর উদাহরণটি খেয়াল করুন।

Write Message: TR 725
Send to: 16318

উক্ত মেসেজটি পাঠানোর কিছুক্ষণের মধ্যে আপনার মোবাইলে একটি ফিরতি মেসেজ আসবে। সেখানে ট্রেনের লাইভ লোকেশন ও অন্যান্য তথ্য লেখা থাকবে। এম.এম.এস পাঠাতে চার্জ প্রযোজ্য হবে।

সকল ট্রেনের কোড নাম্বার

আপনি যদি ট্রেনের অবস্থান জানতে এসএমএস পাঠাতে চান তাহলে ট্রেনের কোড নাম্বার অথবা নাম লিখতে হবে। আপনারা যাতে সহজেই সকল ট্রেনের কোড নাম্বার খুঁজে পেতে পারেন সেজন্য নিচে একটি টেবিল সম্বলিত ছবি যুক্ত করেছি।

সকল ট্রেনের কোড নাম্বার
সকল ট্রেনের কোড নাম্বার
সকল ট্রেনের কোড নাম্বার
সকল ট্রেনের কোড নাম্বার

এই ছবিটি আপনার ফোনে সেভ করে রাখতে পারেন। প্রয়োজনের সময় যেকোনো ট্রেনের কোড নাম্বার পেতে পারবেন।

অথবা ট্রেন নাম্বার জানতে eticket.railway.gov.bd ওয়েবসাইটে গিয়ে সার্চ করতে পারেন।

সারসংক্ষেপ: ট্রেনের লাইভ লোকেশন

আশা করছি, আজকের পুরো টিউটোরিয়ালটি যদি মনোযোগ দিয়ে অনুসরণ করেন এবং সে মোতাবেক কাজ করতে পারেন তাহলে যেকোনো সময় আপনার হাতের মোবাইলটি দিয়ে যেকোনো ট্রেনের লোকেশন চেক করতে পারবেন।

অনলাইনে ট্রেনের অবস্থান জানার উপায় সম্পর্কিত কোনো প্রশ্ন, মতামত বা সমস্যা থাকলে তা কমেন্ট করে জানাতে পারেন। ধন্যবাদ আপনাকে এবং আপনার দিনটি শুভ হোক।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন